প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং নামের বানান সংশোধনের পত্র। - সকল গেজেট এক ঠিকানায় || All gazettes are in one site.

প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং নামের বানান সংশোধনের পত্র।



প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং নামের বানান সংশোধনের পত্র।
সম্মানিত পাঠক, পোস্টের মূল আলোচনায় যাবার আগে আপনাদের একটুখানি স্মরণ করিয়ে দিতে চাই “সকল গেজেট
এক ঠিকানায়” শিরোনামের এ বাংলা ব্লগে আপনাদের জন্য আয়োজিত বিষয়বস্তুগুলোর মধ্যে রয়েছে-
“প্রাথমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র”“প্রাথমিক শিক্ষার অফিস আদেশ ও পত্র”, “মাধ্যমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”“উচ্চ শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”, “বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল” এবং “পেশাগত প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল” “তথ্য ওপ্রযুক্তি বিষয়ক প্রজ্ঞাপন ও পত্র” এবং ডিজিটাল কন্টেন্টসমূহ “পাঠ্য বইয়ের ই-সংষ্করণ” , “ধর্মীয় ই-বুকসমূহ” এবং “আইন ও বিধিমালার ই-বুকসমূহ”, “জাতীয় পরিচয় বিষয়ক প্রজ্ঞাপন”, “জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনেরপ্রজ্ঞাপন ও পত্র”,   “জাতীয় বেতন স্কেলসমূহ“বিভিন্ন আর্থিক সুবিধার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”মুক্তিযোদ্ধাদের গেজেট ও তালিকা” ও  মুক্তিযোদ্ধা ভাতার প্রজ্ঞাপন ও পত্র” এবং “সকল সেবার ফরম এক ঠিকানায়”সহ বিভিন্ন ধরনের গুরূত্বপূর্ণ গেজেট, পরিপত্র ও পত্রাদিসহ  আরও অনেক গুরূত্বপূর্ণ বিষয়। এবার আসা যাক, পোস্টের মূল কথায়।
প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীগণ জন্ম তারিখ সংশোধনের বিষয়ে বিভিন্ন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস এবং উপজেলা/থানা শিক্ষা অফিসে আবেদন করেন। পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ সংশোধনের বিষয়ে সুস্পষ্ট কোন নির্দেশনা না থাকায় মাঠ পর্যায় হতে আবেদনগুলো প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরে প্রেরণ করা হয়।
প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা সংক্রান্ত নির্বাহী কমিটির ১৮তম সভায় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ সংশোধনের বিষয়ে নিম্নরূপ সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়ঃ
(১) সংশোধিত জন্ম সনদ এর ক্ষেত্রে জন্ম সনদ প্রদানকারী সংস্থা কর্তৃক পূর্বের জন্ম সনদ বাতিল করা হয়েছে মর্মে প্রত্যয়ন দাখিলাপূর্বক সনদপত্র সংশোধন করা যাবে;
(২) উপজেলা/থানা শিক্ষা অফিসারগণ পরীক্ষার্থীর জন্ম সনদের ভিত্তিতে এবং অভিভাবকের জাতীয় পরিচয় পত্র অনুসারে নাম সংশোধন করে প্রদান করবেন। এ ধরণের সংশোধনের জন্য আবেদন প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরে প্রেরণের প্রয়োজনীয়তা নেই।
৩ । প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং অভিভাবকগণের নামের বানান সংশোধন করে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারগণ প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরে সংরক্ষিত ডাটাবেজ সংশোধনের নিমিত্ত বিষয়টি আইএমডি বিভাগকে অবহিত করবেন।
৪ । এমতাবস্থায়, প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা সংক্রান্ত নির্বাহী কমিটির সভার সিদ্ধান্ত অনুসারে পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং অভিভাবকগণের নামের বানান সংশোধনের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হয়েছে।
সম্মানিত পাঠক, প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের জন্ম তারিখ এবং নামের বানান সংশোধনের পত্রটি অরিজিনাল ফর্মেটে হুবহু দেখতে ও ডাউনলোড করে নিতে এখানে ক্লিক করুন।

কোন মন্তব্য নেই

pollux থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.