বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছে - সকল গেজেট এক ঠিকানায় || All gazettes are in one site.

বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছে


বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছেবাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছে। সম্মানীত ভিজিটর, সরকারি-বেসরকারি প্রজ্ঞাপন ও চিঠি-পত্র সমৃদ্ধ এ বাংলা ব্লগ সাইটে আপনাকে স্বাগত জানাচ্ছি। পোস্টটি শেষ পর্যন্ত দেখুন।
প্রিয় পাঠক, আপনি যদি আমার এই অলগেজেটস ডট কম সাইটে নতুন এসে থাকেন; তাহলে, সাইটে প্রতিনিয়ত প্রকাশিত নতুন পোষ্টের আপডেট পেতে-প্লিজ, সাইটের ফেসবুক পেজে” লাইক দিয়ে সাইটটির সঙ্গেই থাকুন। আর যদি ইতোমধ্যে আপনি “ফেজবুক পেজে” লাইক দিয়ে থাকেন,
তাহলে আপনাকে আবারও স্বাগত জানাচ্ছি বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রজ্ঞাপন ও চিঠি-পত্র একত্রে, একসঙ্গে পাবার এ পাঠকপ্রিয় বাংলাদেশী বাংলা ব্লগে। আশা করি, পরবর্তীতে আবারও এসে ধন্য করবেন “সকল গেজেট এক ঠিকানায়” শিরোনামের এ বাংলা ব্লগে।





পাঠক, আপনাদের সকলের চাহিদার প্রতি লক্ষ্য রেখে এ ব্লগে আয়োজন করেছি-প্রাথমিক শিক্ষার অফিস আদেশ ও পত্র, প্রাথমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন, মাধ্যমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র, উচ্চ শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র, শিক্ষকদের বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল, শিক্ষকদের পেশাগত প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল, তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক প্রজ্ঞাপন ও পত্র, পাঠ্য বইয়ের ই-সংষ্করণ, ধর্মীয় ই-বুকসমূহ, আইন ও বিধিমালার ই-বুকসমূহ, জাতীয় পরিচয় পত্র বিষয়ক প্রজ্ঞাপন, জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনের প্রজ্ঞাপন ও পত্র, জাতীয় বেতন স্কেলসমূহ, বিভিন্ন আর্থিক সুবিধার প্রজ্ঞাপন ও পত্রসহ বিভিন্ন ধরনের সরকারি-বেসরকারি গুরূত্বপূর্ণ গেজেট, পরিপত্র ও পত্রাদি। এবার আসা যাক, আজকের পোষ্টের কথায়।
--------------------------------------------------
আরও দেখুন-
-------------------------------------------------
বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছে।
বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের মুখবন্ধ অংশে বলা হয়েছে যে. কোন পেশাজীবীর দক্ষতা উন্নয়ন এবং সর্বোচ্চ সেবা প্রদান নিশ্চিতকরণের জন্য তাকে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ প্রদান অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকগণের পেশাগত জ্ঞান বৃদ্ধি ও দক্ষতা উন্নয়নের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে এক বছর মেয়াদী| সি-ইন-এড প্রশিক্ষণ কোর্স প্রচলিত রয়েছে, যা সকল শিক্ষকের জন্য বাধ্যতামূলক। শিক্ষকগণ সাধারণত চাকরি জীবনের | প্রথমদিকেই এ প্রশিক্ষণটি গ্রহণ করে থাকেন। পরবর্তীতে তাদের পেশাগত জ্ঞান ও দক্ষতাকে সময়োপযোগি করে রাখার জন্য কিছু কিছু প্রশিক্ষণের আয়োজন করা হলেও শিক্ষকদের প্রয়োজনের তুলনায় তা খুবই সীমিত। তাই বাংলাদেশের প্রাথমিক শিক্ষকগণের সার্বক্ষনিক প্রশিক্ষণ চাহিদা পূরণের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে প্রাথমিক শিক্ষা উন্নয়ন কর্মসূচি-১ এর আওতায় ইউআরসি।
প্রতিষ্ঠা করার পর প্রাথমিক শিক্ষা উন্নয়ন কর্মসূচি-২ এর আওতায় দেশের সকল শিক্ষককে প্রাথমিক শিক্ষার ৫টি মূল বিষয়ের উপর বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছিল। সম্প্রতি সি-ইন-এড কোর্সের স্থলে ডিপিএড কোর্স চালু হবার প্রেক্ষিতে বাংলাদেশের প্রাথমিক শিক্ষকগণের প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে একটি বৈপ্লবিক পরিবর্তন এসেছে।
নব প্রবর্তিত ডিপিএড কোর্সটি প্রাথমিক স্তরের শিক্ষকগণের জন্য অত্যন্ত সমৃদ্ধ একটি কোর্স যেখানে শিক্ষকগণের পেশাগত উন্নয়নের জন্য শিক্ষণবিজ্ঞান সংক্রান্ত জ্ঞান (Pedagogical Knowledge), বিষয়জ্ঞান (Subject-Knowledge) ও নির্দিষ্ট বিষয়বস্তু উপস্থাপনের জন্য শিক্ষণবিজ্ঞান (Pedagogical Content Knowledge)-এ তিনটি বিষয়ের অপূর্ব সমন্বয় ঘটেছে। সঙ্গত কারণেই এখানে শিখনের নূতন নূতন তত্ত্ব, শিখন শেখানোর পদ্ধতি ও কৌশল, নূতন বিষয়বস্তু এবং উহা শ্রেণিতে উপস্থাপনের জন্য সংশ্লিষ্ট বিষয়জ্ঞান ইত্যাদির সংমিশ্রণ ঘটেছে। ডিপিএড কোর্সটি শিখনের সংগঠনমূলক তত্ত্বের উপর ভিত্তি করে ডিজাইন করা হয়েছে। ফলে শিখন শেখানোর ক্ষেত্রেও শিক্ষার্থীকেন্দ্রিক শিখন শেখানো নিশ্চিত হবে, যা শিক্ষার্থীর সার্বিক বিকাশের সাথে সঙ্গতিপূর্ণ। নবনিযুক্ত শিক্ষকগণ ডিপিএড কোঅধ্যয়নের সুযোগ পেলেও ইতোপূর্বে সিইনএড প্রশিক্ষণ গ্রহন করা শিক্ষকগণের জন্য সে সুযোগ নেই। সঙ্গত কারণেই কর্মরত শিক্ষকগণের জন্য ডিপিএড এর বার্তা পৌছে দেয়া অত্যন্ত জরুরী।





সমসাময়িক সময়ে বাংলাদেশের প্রাথমিক শিক্ষা ক্ষেত্রে আর একটি যুগোপযোগি পরিবর্তন হলো ২০১৩ সাল থেকে নবপ্রবর্তিত কারিকুলামের বাস্তবায়ন। নবপ্রবর্তিত কারিকুলাম যথাযথভাবে বিস্তরণের জন্য শিক্ষক প্রশিক্ষণ অপরিহার্য হয়ে পড়েছে। ইউআরসি কর্তৃক ইতোপূর্বে দেয়া বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ শিক্ষকগণের বর্তমান প্রশিক্ষণ চাহিদা পূরণে সক্ষম নয় সঙ্গত কারণেই | গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার প্রাথমিক শিক্ষা উন্নয়ন কর্মসূচি-৩ এর আওতায় বাংলাদেশের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষকের জন্য সঞ্জীবনীমূলক বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণের আয়োজন করতে যাচ্ছে। এ প্রশিক্ষণের অংশ হিসেবে বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ে শিক্ষকগণের প্রশিক্ষনের জন্য এ মডলটি ব্যবহৃত হবে।

বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের প্রশিক্ষণ ম্যানুয়ালে যা রয়েছে
উল্লেখ্য প্রাথমিক স্তরের নব প্রবর্তিত কারিকুলামে ‘পরিবেশ পরিচিতি সমাজ’ বিষয়টির নাম পরিবর্তন করে বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয়’ নামকরণ করা হয়েছে। সঙ্গত কারণেই এর বিষয়বস্তুতেও ব্যাপক পরিবর্তন এসেছে। বর্তমান মড়লটি সে দিকটি বিবেচনায় রেখে ডিপিএড ভাবধারার উপর ভিত্তি করে রচিত হয়েছে, যা কর্মরত সকল শিক্ষকের প্রশিক্ষণ চাহিদা পূরণে সমর্থ হবে বলে আশা করি।

সম্মানিত পাঠক, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিষয়ের ম্যানুয়ালটি অরিজিনাল ফর্মেটে হুবহু দেখতে ও ডাউনলোড করে নিতে এখানে ক্লিক করুন।
 
আর্টিকেলটি ভালো লাগলে লাইক ও শেয়ার করুন, প্লিজ।
গেজেটের নিয়মিত আপডেট পেতে আমাদের এ ফেসবুক পেজে” লাইক দিয়ে রাখুন।




কোন মন্তব্য নেই

pollux থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.