প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা: - সকল গেজেট এক ঠিকানায় || All gazettes are in one site.

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা:




প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা-২০১৩/Primary school teacher appointment policy-2013. সম্মানিত পাঠক, পোস্টের মূল আলোচনায় যাবার আগে আপনাদের একটুখানি স্মরণ করিয়ে দিতে চাই “সকল গেজেট এক ঠিকানায়” শিরোনামের এ বাংলা ব্লগে আপনাদের জন্য আয়োজিত বিষয়বস্তুগুলোর মধ্যে রয়েছে-

“প্রাথমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র”“প্রাথমিক শিক্ষার অফিস আদেশ ও পত্র”, “মাধ্যমিক শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”“উচ্চ শিক্ষার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”, “বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল” এবং “পেশাগত প্রশিক্ষণ ও ম্যানুয়াল” “তথ্য ওপ্রযুক্তি বিষয়ক প্রজ্ঞাপন ও পত্র” এবং ডিজিটাল কন্টেন্টসমূহ “পাঠ্য বইয়ের ই-সংষ্করণ” , “ধর্মীয় ই-বুকসমূহ” এবং “আইন ও বিধিমালার ই-বুকসমূহ”, “জাতীয় পরিচয় বিষয়ক প্রজ্ঞাপন”, “জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনেরপ্রজ্ঞাপন ও পত্র”,   “জাতীয় বেতন স্কেলসমূহ“বিভিন্ন আর্থিক সুবিধার প্রজ্ঞাপন ও পত্র”মুক্তিযোদ্ধাদের গেজেট ও তালিকা” ও  মুক্তিযোদ্ধা ভাতার প্রজ্ঞাপন ও পত্র” এবং “সকল সেবার ফরম এক ঠিকানায়”সহ বিভিন্ন ধরনের গুরূত্বপূর্ণ গেজেট, পরিপত্র

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধানের ১৩৩ অনুচ্ছেদের শর্তাংশে প্রদত্ত ক্ষমতাবলে রাষ্ট্রপতি, উক্ত সংবিধানের ১৪০(২) অনুচ্ছেদের বিধান মোতাবেক বাংলাদেশ সরকারি কর্মকমিশনের সহিত পরামর্শক্রমে, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা, ১৯৯১ বাতিলক্রমে নিম্নরূপ বিধিমালা প্রণয়ন করিলেন, যথাঃ
১। সংক্ষিপ্ত শিরোনাম —এই বিধিমালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা, ২০১৩ নামে অভিহিত হইবে।
২। সংজ্ঞা –বিষয় বা প্রসঙ্গের পরিপন্থী কোন কিছু না থাকিলে, এই বিধিমালায়
(ক)"কমিশন" অর্থ বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন,
 (খ) “কমিটি অর্থ প্রাথমিক শিক্ষক নির্বাচন কমিটি;
 (গ) “তফসিল” অর্থ এ বিধিমালার সহিত সংযোজিত তফসিল,
(ঘ)"নিয়োগকারী কর্তৃপক্ষ" অর্থ সরকার বা সরকার কর্তৃক ক্ষমতাপ্রাপ্ত কোন কর্মকর্তা;   (ঙ) “প্রয়োজনীয় যোগ্যতা অর্থ তাফসিলে বর্ণিত কোন পদের বিপরীতে উল্লিখিত যোগ্যতা,
(চ) " পদ অর্থ তাফসিলে উল্লিখিত কোন পদ,
(ছ) “শিক্ষানবিস" অর্থ কোন পদে শিক্ষানবিস হিসাবে নিযুক্ত কোন ব্যক্তি;
(জ) “স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয়” বা “স্বীকৃত বোর্ড” বা “স্বীকৃত ইন্সষ্টিটিউট” বা “স্বীকৃত প্রতিষ্ঠান” অর্থ আপাততঃ বলবৎ কোন আইনের দ্বারা বা আইনের অধীন প্রতিষ্ঠিত কোন বিশ্ববিদ্যালয়, বা ক্ষেত্রমত, শিক্ষাবোর্ড বা ইনস্টিটিউট বা প্রতিষ্ঠান এবং এই বিধিমালার উদ্দেশ্য পূরণকল্পে,
কমিশনের সহিত পরামর্শক্রমে সরকার কর্তৃক স্বীকৃত বলিয়া ঘোষিত অন্য কোন বিশ্ববিদ্যালয় বা শিক্ষাবোর্ড বা ইনস্টিটিউট বা প্রতিষ্ঠানও ইহার অন্তর্ভুক্ত হইবে,
(ঝ)অভিজ্ঞতা" বলিতে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহে শিক্ষকতার অভিজ্ঞতা বুঝাইবে ।
৩। নিয়োগ পদ্ধতি।–(১) তফসিলে বর্ণিত বিধান সাপেক্ষে এবং গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সংবিধানের অনুচ্ছেদ ২৯(৩)-এর উদ্দেশ্য পূরণকল্পে, সংরক্ষণ সংক্রান্ত নির্দেশাবলি সাপেক্ষে কোন পদে নিম্নে বিধৃত পদ্ধতিতে নিয়োগদান করা হইবে, যথা:-
(ক) সরাসরি নিয়োগের মাধ্যমে; এবং
(খ'। পদোন্নতির মাধ্যমে
(২) কোন ব্যক্তিকে কোন পদে নিয়োগ করা হইবে না। যদি তজ্জন্য তাহার প্রয়োজনীয় যোগ্যতা না থাকে, এবং সরাসরি নিয়োগের ক্ষেত্রে, তাঁহার বয়স উক্ত পদের জন্য তফসিলে বর্ণিত বয়:সীমার মধ্যে না হয়।
সম্মানিত পাঠক, উপরোক্ত “নিয়োগ বিধিমালা” সরাসরি দেখতে ও ডাউনলোড করে নিতে এখানে ক্লিক করুন। সবার জন্য শুভ কামনা রইলো-আল্লাহ হাফিজ।

কোন মন্তব্য নেই

pollux থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.